Coronavirus is not transmitted through food

Coronavirus is not transmitted through food, said Additional Director General (Administration) of the Department of Health. Nasima Sultana. Citing the World Health Organization, he said that coronavirus (Kavid-19) is not transmitted through food. However, for food security, there are 5 things to follow to prevent food borne diseases. Maintain cleanliness at all levels, keep raw and cooked food separate, cook well.

LIKE OUR FACEBOOK PAGE

খাবারের মাধ্যমে করোনাভাইরাস সংক্রমিত হয় না

 
খাবারের মাধ্যমে করোনাভাইরাস সংক্রমিত হয় না

খাবারের মাধ্যমে করোনাভাইরাস সংক্রমিত হয় না বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বরাত দিয়ে তিনি বলেছেন, খাবারের মাধ্যমে করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) সংক্রমিত হয় না। তবে খাদ্য নিরাপত্তার জন্য খাদ্য বাহিত রোগ প্রতিরোধের জন্য ৫টি বিষয় অনুসরণ করতে হবে। সর্বস্তরে পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখা, কাঁচা এবং রান্না করা খাবার আলাদা রাখা, ভালো ভাবে সেদ্ধ করে রান্না করা, নিরাপদ তাপমাত্রায় খাবার সংরক্ষণ করা, নিরাপদ পানি ও খাদ্য কাঁচামাল ব্যবহার করা। তবে সব স্তরে ব্যক্তিগত স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

আজ রবিবার দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত হেলথ বুলেটিনে এ তথ্য জানানো হয়। 

সুষম ও পুষ্টিকর খাবার গ্রহণের পরামর্শ দিয়ে ডা. নাসিমা সুলতানা বলেন, বিভিন্ন ধরনের টাটকা শাক-সবজি, ফল, পূর্ণ শস্যদানা সমৃদ্ধ খাবার বিভিন্ন প্রকার ডাল এবং শিম জাতীয় খাবারের পাশপাশি মাছ, মাংস, ডিম, দুধ ইত্যাদি খেতে হবে।

শিশু খাদ্যের বিষয়ে তিনি বলেন, শূন্য থেকে ৬ মাস পর্যন্ত শুধু মায়ের বুকের দুধই যথেষ্ট। কারণ মায়ের বুকের দুধ থেকে শিশুর সবধরনের পুষ্টি এবং পানি পেয়ে থাকে। শিশুর বয়স ৬ মাসের পর মায়ের দুধের পাশাপাশি পূর্ণ নিরাপদ পুষ্টিসম্পন্ন বয়স উপযোগী খাবার দিতে হবে এবং ২ বছর পর্যন্ত অবশ্যই বুকের দুধ পান করাতে হবে। মায়ের বুকের দুধের মাধ্যমে করোনা সংক্রমিত হয় না। তবে মা করোনা বিষয়ক সাস্থ্যবিধি মেনে চলবেন।

  1. নিয়মিত চাকরির আপডেট পেতে আমাদের গ্রুপে জয়েন করুন

অনলাইন বুলেটিনে বলা হয়, বাংলাদেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৫৫ জন। এনিয়ে মোট মারা গেলেন দুই হাজার ৫২ জন। এছাড়া একই সময়ে আরও দুই হাজার ৭৩৮ জন করোনাভাইরাসে সংক্রমিত রোগী শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মোট শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়াল এক লাখ ৬২ হাজার ৪১৭ জন।

Check Also

In the second phase, 10 more pairs of trains were launched

দ্বিতীয় ধাপে আরো ১০ জোড়া ট্রেন চালু     Join our Facebook Group

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *